শফিকুল ইসলাম সাগর বিশেষ প্রতিনিধি গাইবান্ধাঃ

গাইবান্ধা জেলার সাদুল্লাপুর উপজেলায় ১৬ মে রাতভর অভিযান চালিয়ে ৪ জন মোটরসাইকেল চোর চক্রের সদস্য কে গ্রেফতার করে পুলিশ। দিনাজপুর জেলার নবাবগঞ্জ থানা পুলিশের একটি চৌকস টিম সাদুল্লাপুর থানা পুলিশের সহায়তায় মোটরসাইকেল চোর চক্রের সদস্যদের গ্রেফতার ও চুরি হওয়া একটি ডিসকাভার মোটরসাইকেল উদ্ধার করতে সক্ষম হয়।
জানা যায়, গত ১৬ মে আনুমানিক সকাল ১১ টায় নবাবগঞ্জ হাসপাতালের সামন থেকে একটি ডিসকাভার মোটরসাইকেল চুরি হয়। গাড়ির মালিক নবাবগঞ্জ থানায় অভিযোগ দায়ের করেন। উক্ত
অভিযোগের ভিত্তিতে নবাবগঞ্জ থানা পুলিশ অত্র এলাকার বিভিন্ন জায়গার সিসি ক্যামেরার ফুটেছ চেক করে। সিসি কামেরা চেক করে মোটরসাইকেল চালিয়ে আসা রাজা মিয়াকে সনাক্ত করেন পুলিশ।
রাতেই নবাবগঞ্জ থানার ছয় সদস্যের একটি চৌকস টিম সহ সাদুল্লাপুর থানা পুলিশের একটি চৌকস টিম রাতভর অভিযান চালিয়ে সাদুল্লাপুর উপজেলার বিভিন্ন গ্রাম থেকে চার জনকে চোর চক্রের সদস্যদের গ্রেফতার সহ চুরি হওয়া মোটরসাইকেটি উদ্ধার করে পুলিশ।

অভিযানে অংশগ্রহণ কারী পুলিশ টিমের সূত্রে জানা যায়, অভিযানে প্রথমে মোটরসাইকেল চালিয়ে আসা রাজা মিয়াকে গ্রেফতার করা হয়। এরপরে তার দেয়া তথ্যমতে, বাকী ৪ জনকে গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন, বড় দাউদপুর গ্রামের রহেদ আলীর পুত্র রাজা মিয়া (৪০), দড়ি তাজপুর গ্রামের মৃত্যু কফিল উদ্দিনের পুত্র জহুরুল (৩৮), নিজ পাড়া গ্রামের মৃত্যু মতিনের পুত্র আবদুল্লাহ আল মামুন মিঠু (৫০), ছোট ছত্রগাছা গ্রামের শহিদুলের পুত্র সৌরভ ইসলাম (২৫)।
আরো জানা যায় ছোট ছত্রগাছা গ্রামের শহিদুল ইসলামের পুত্র সৌরভ (২৫) গত কাল ১৬ মে বৌবাজার থেকে মাদারগঞ্জের এক ব্যক্তির নিকট থেকে ২১ হাজার টাকায় ডিসকাভার মোটরসাইকেলটি ক্রয় করে। পুলিশ তার নিকট হতে মোটরসাইকেল উদ্ধার সহ তাকে গ্রেফতার করে।

মোটরসাইকেল চোর চক্রের সদস্যদের গ্রেফতারের পর সাদুল্লাপুর থানার ধাপেরহাট পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রে হাজির করা হয় এবং জিডি মুলে নবাবগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) এর উপস্থিতিতে ধৃত আসামিদের হস্তান্তর করা হয়।

দিনাজপুরের নবাবগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ এই মোটরসাইকেল চোর চক্রের বিষয়ে ঘটনার বিস্তারিত বর্ণনা করে প্রেস ব্রিফিং করেন।

আপনি যে খবরগুলো মিস করেছেন