ওয়াসিম শেখ, সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি:

র‌্যাব-১২ অভিযানে সিরাজগঞ্জ জেলার তাড়াশ থানা এলাকা হতে বাক প্রতিবন্ধী কিশোরী ধর্ষণ মামলার পলাতক আসামি গ্রেফতার করেছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন স্কোয়াড্রন লীডার কোম্পানী কমান্ডার মোহাম্মদ ইলিয়াস খান।
শুক্রবার (৩১ মে) সকালে র‌্যাব-১২ প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয যে গত (৩০ মে) রাত্রি ৮.০০ ঘটিকার সময় র‌্যাব সদর দপ্তরের গোয়েন্দা শাখার সহযোগিতায় র‌্যাব-১২’র সদর কোম্পানির একটি আভিযানিক দল ‘‘সিরাজগঞ্জ জেলার তাড়াশ থানাধীন ধোপাগাড়ী বাজার এলাকায়” একটি অভিযান পরিচালনা করে ধর্ষণ মামলার পলাতক আসামি মোঃ রবিন (২০) সিরাজগঞ্জ জেলার তাড়াশ থানার বিনশারা গ্রামের মোঃ মানিকের ছেলে কে গ্রেফতার করে। আসামির বিরুদ্ধে সিরাজগঞ্জ জেলার তাড়াশ থানার ২২ মে ২০২৪ ইং তারিখে (৯(১)/৩০, ২০০০ সালের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন সংশোধনী ২০০৩ ধারায়) মামলা দাঁড় করা হয়। উক্ত মামলা নাম্বার-১৪/১৩৪।

মামলার সূত্রে জানা যায় যে, গত ২০ মে ২০২৪ তারিখ সন্ধ্যাবেলা বাদীনির নিকটাত্মীয় মারা যাওয়ার কারণে বাক প্রতিবন্ধী ভিকটিমকে তার মা তাদের ঘরে রেখে বাড়ির দায়িত্ব ভাসুর মানিক কর্মকারের কাছে দিয়ে যান। দাফন কার্য শেষে রাত ৯.০০ ঘটিকার সময় বাড়িতে আসলে বাদীর ভাসুর এবং শাশুড়িকে তাদের ঘরে বসে থাকতে দেখেন। বাদীনি তার বাক প্রতিবন্ধী মেয়েকে দেখে শাশুড়িকে জিজ্ঞাসা করলে শাশুড়ি বলে যে, রবিন ভিকটিমকে ধর্ষন করে পালিয়ে গেছে। এ ঘটনায় ভিকটিমের মা বাদী হয়ে সিরাজগঞ্জ জেলার তাড়াশ থানায় একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন। পরবর্তীতে র‌্যাব-১২ এর ছায়াতদন্ত ও গোয়েন্দা নজরদারি বৃদ্ধি করে আসামি মোঃ রবিন (২০) কে গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারকৃত আসামিকে পরবর্তী আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য সিরাজগঞ্জ জেলার তাড়াশ থানার অফিসার ইনচার্জ এর নিকট হস্তান্তর করা হয়েছে।

আপনি যে খবরগুলো মিস করেছেন